ব্রেকিং:
উৎপাদন বৃদ্ধিতে একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার করোনাকালে চূড়ান্ত এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ করোনা মোকাবেলায় বঙ্গবন্ধুর স্বাস্থ্যসেবা দর্শন বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে করোনা পরীক্ষা হবে চার বেসরকারি হাসপাতালে ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশের প্রশংসা করলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দেশে ৫৪৯ নতুন করোনা রোগী শনাক্ত, আরো ৩ মৃত্যু হাসপাতাল থেকে পালানো করোনা রোগীকে বাগান থেকে উদ্ধার চাঁদপুরে ২০০০ পরিবারের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ চীনের ৪ বিশেষজ্ঞ ঢাকায় আসছেন ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে ১৪শ` কোটি টাকার জরুরি প্রকল্প নির্দেশনা না মানায় গণস্বাস্থ্যের কিট গ্রহণ করিনি বাংলাদেশে ১৯ মের মধ্যে করোনা বিদায় নেবে ৯৭ শতাংশ চাকরির বয়স শিথিলের বিষয় ভাবছে সরকার মানসম্মত কোন ধাপ অতিক্রম করেনি গণস্বাস্থ্যের কিট প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের টাকা পেলেন ১৫ চরমপন্থী
  • শনিবার   ৩০ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

  • || ০৬ শাওয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
একবছরে পাঁচগুণ মুনাফা বেড়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আমাজন বাঁচাতে লিওনার্দোর ৫০ মিলিয়ন ডলারের অনুদান ১৬২৬৩ ডায়াল করলেই মেসেজে প্রেসক্রিপশন পাঠাচ্ছেন ডাক্তার জোরশোরে চলছে রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পের কাজ
৫১৫

ঘটনা যা সত্য সেটিই তুলে ধরতে পুলিশ সুপারের অনুরোধ

দৈনিক চাঁদপুর

প্রকাশিত: ১৩ মে ২০১৯  

ধর্ষণসহ নানা স্পর্শকাতর বিষয়ে সংবাদ পরিবেশন এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লেখালেখি করার ক্ষেত্রে, সতর্কতা অবলম্বনের অনুরোধ জানিয়েছেন, চাঁদপুরের পুলিশ সুপার জিহাদুল কবির বিপিএম, পিপিএম। ঘটনা যা সত্য সেটিই তুলে ধরতে তিনি মিডিয়া কর্মীদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন।

এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে, সারাদেশেই ঘটছে। কিন্তু কিছু মিডিয়া এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এগুলোকে খুব হাইলাইট করা হয়। এমনভাবে তুলে ধরা হয়, যার ফলে আমরা নিজেরা সচেতন মানুষ হওয়ার পরও আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়ছি। একটা ভীতিকর অবস্থা সৃষ্টি করা হয়। এগুলো থেকে আমাদর বেরিয়ে আসতে হবে। 

সম্প্রতি হাজীগঞ্জে একটি ধর্ষণের ঘটনাকে কেন্দ্র করে একটি নামকরা জাতীয় পত্রিকায় শিরোনাম আসলো 'একটি শিশু মেয়েকে চারজন যুবকের অর্থাৎ গণধর্ষণে শিশু অন্তঃসত্ত্বা হয়েছে।' কিন্তু প্রকৃত ঘটনা হচ্ছে- সে মেয়েটি শিশু নয়, তার বয়স ১৮/১৯ বছর। তার সাথে একই এলাকার কয়েকটা ছেলের সম্পর্ক হয়। সেটি এক পর্যায়ে শারীরিক সম্পর্কে রূপ নেয় এবং এটি সবসময় হয়। পরে মেয়েটি অন্তঃসত্ত্বা হয়। অথচ মিডিয়ায় আসলো, শিশু গণধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা। পত্রিকা পড়ে মনে হলো যে, ওখানে আইনশৃঙ্খলা বলতে কোনো কিছুই নেই। 

এসব লিখে সমাজে একটা অস্থিরতা ও ভীতি সৃষ্টি করা হচ্ছে। এসব থেকে আমাদের বেরিয়ে আসতে হবে। আমাদের আরো বেশি সচেতন হতে হবে। অস্থিরতা বা ভীতিকর পরিস্থিতি সৃষ্টি করা কোনো সুস্থ সমাজের জন্যে কাম্য নয়। তাই আমি মিডিয়া কর্মী এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যারা লিখেন তাদের প্রতি অনুরোধ করবো, যেটা ঘটনা সত্য, সেটাই আসুক।

দৈনিক চাঁদপুর
দৈনিক চাঁদপুর
নগর জুড়ে বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর