ব্রেকিং:
উৎপাদন বৃদ্ধিতে একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার করোনাকালে চূড়ান্ত এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ করোনা মোকাবেলায় বঙ্গবন্ধুর স্বাস্থ্যসেবা দর্শন বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে করোনা পরীক্ষা হবে চার বেসরকারি হাসপাতালে ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশের প্রশংসা করলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দেশে ৫৪৯ নতুন করোনা রোগী শনাক্ত, আরো ৩ মৃত্যু হাসপাতাল থেকে পালানো করোনা রোগীকে বাগান থেকে উদ্ধার চাঁদপুরে ২০০০ পরিবারের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ চীনের ৪ বিশেষজ্ঞ ঢাকায় আসছেন ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে ১৪শ` কোটি টাকার জরুরি প্রকল্প নির্দেশনা না মানায় গণস্বাস্থ্যের কিট গ্রহণ করিনি বাংলাদেশে ১৯ মের মধ্যে করোনা বিদায় নেবে ৯৭ শতাংশ চাকরির বয়স শিথিলের বিষয় ভাবছে সরকার মানসম্মত কোন ধাপ অতিক্রম করেনি গণস্বাস্থ্যের কিট প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের টাকা পেলেন ১৫ চরমপন্থী
  • শুক্রবার   ২৯ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৫ ১৪২৭

  • || ০৫ শাওয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
একবছরে পাঁচগুণ মুনাফা বেড়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আমাজন বাঁচাতে লিওনার্দোর ৫০ মিলিয়ন ডলারের অনুদান ১৬২৬৩ ডায়াল করলেই মেসেজে প্রেসক্রিপশন পাঠাচ্ছেন ডাক্তার জোরশোরে চলছে রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পের কাজ
৩৫০

চলছে শৈত্যপ্রবাহ, সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৬.১ ডিগ্রি

দৈনিক চাঁদপুর

প্রকাশিত: ১৭ জানুয়ারি ২০১৯  

শৈত্যপ্রবাহ চলছে দেশের বিভিন্ন স্থানে। তবে অঞ্চল ভেদে কোথাও ‘মৃদু’, কোথাও ‘মাঝারি’ ও কোথাও ‘তীব্র’ শৈত্যপ্রবাহ বইছে। সারা দেশের মানুষ কনকনে শীতে কাবু প্রায় অবস্থা, বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে তাদের জনজীবন। বলা যায়, ‘শীতে জবুথবু’ অবস্থা।

শীতে খেচে খাওয়া নিম্ন আয়ের দরিদ্র ও বস্ত্রহীন মানুষের ভোগান্তির কোনো শেষ নেই। প্রচণ্ড ঠাণ্ডায় বেশি ভুগছে শিশু ও বয়স্করা। বিভিন্ন হাসপাতালে ঠাণ্ডাজনিত শিশু ও বয়স্ক রোগীদের ভিড় বাড়ছে। অন্যদিকে শীতে বোরো ধান এবং আলুর ফলনে প্রভাব পড়ার শঙ্কা দেখা দিয়েছে।

আবহাওয়া অধিদফতর বলছে, উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। মূলত এ কারণে শৈত্যপ্রবাহ অব্যাহত আছে।

আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, তাপমাত্রা যদি ৪ থেকে ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামে তবে তা তীব্র শৈত্যপ্রবাহ বলে। তাপমাত্রা ৬ থেকে ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস হলে তাকে মাঝারি মাত্রার শৈত্যপ্রবাহ। এবং ৮ থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রাকে বলে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বলে।

এই হিসেবে সারা দেশের বেশির ভাগ স্থানে শৈত্যপ্রবাহ বইছে।

বুধবার (১৬ জানুয়ারি) দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল চুয়াডাঙ্গায় ৬ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিকে শীতের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে রোগ। এরইমধ্যে কোল্ড ডায়রিয়া, সর্দি-কাশি, শ্বাসকষ্ট, হাঁপানিসহ নানা রোগের প্রকোপ দেখা দিয়েছে।

বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী- গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, টাঙ্গাইল, রাজশাহী, পাবনা, নওগাঁ, খুলনা, সাতক্ষীরা, যশোর, চুয়াডাঙ্গা, বরিশাল, পটুয়াখালী, ভোলা ও মৌলভীবাজার অঞ্চলসহ রংপুর বিভাগের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এটা অব্যাহত থাকতে পারে।

দৈনিক চাঁদপুর
দৈনিক চাঁদপুর