ব্রেকিং:
উৎপাদন বৃদ্ধিতে একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার করোনাকালে চূড়ান্ত এমপিওভুক্তির সুখবর পেল ১৬৩৩ স্কুল-কলেজ করোনা মোকাবেলায় বঙ্গবন্ধুর স্বাস্থ্যসেবা দর্শন বৈশ্বিক ক্রয়াদেশ পূরণে সক্ষম বাংলাদেশ ॥ শেখ হাসিনা মানুষের পাশে দাঁড়াচ্ছে মানুষ, দৃষ্টান্ত স্থাপন করে চলেছে করোনা পরীক্ষা হবে চার বেসরকারি হাসপাতালে ২০ হাজারের বেশি আইসোলেশন শয্যা প্রস্তুত রয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা আক্রান্তের শরীরের অক্সিজেনের পরিমাণ ঘরেই পরীক্ষার উপায় দেশে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্ত, আরো ৮ মৃত্যু করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশের প্রশংসা করলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দেশে ৫৪৯ নতুন করোনা রোগী শনাক্ত, আরো ৩ মৃত্যু হাসপাতাল থেকে পালানো করোনা রোগীকে বাগান থেকে উদ্ধার চাঁদপুরে ২০০০ পরিবারের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ চীনের ৪ বিশেষজ্ঞ ঢাকায় আসছেন ভেন্টিলেটর-সিসিইউ স্থাপনে ১৪শ` কোটি টাকার জরুরি প্রকল্প নির্দেশনা না মানায় গণস্বাস্থ্যের কিট গ্রহণ করিনি বাংলাদেশে ১৯ মের মধ্যে করোনা বিদায় নেবে ৯৭ শতাংশ চাকরির বয়স শিথিলের বিষয় ভাবছে সরকার মানসম্মত কোন ধাপ অতিক্রম করেনি গণস্বাস্থ্যের কিট প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের টাকা পেলেন ১৫ চরমপন্থী
  • শনিবার   ৩০ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

  • || ০৬ শাওয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
একবছরে পাঁচগুণ মুনাফা বেড়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আমাজন বাঁচাতে লিওনার্দোর ৫০ মিলিয়ন ডলারের অনুদান ১৬২৬৩ ডায়াল করলেই মেসেজে প্রেসক্রিপশন পাঠাচ্ছেন ডাক্তার জোরশোরে চলছে রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পের কাজ
১৬৮

প্রেম করতে মমতার বিশাল ছাড়!

দৈনিক চাঁদপুর

প্রকাশিত: ১৫ মে ২০১৯  

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী এবং সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের প্রতিষ্ঠাতা-সভানেত্রী মমতা ব্যানার্জি বলেছেন, বিয়ের আমন্ত্রণপত্রে মুসলিম নাম লিখতে লজ্জা পেলে আমার নামে করে দেবেন। 

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় দক্ষিণ কলকাতার টালিগঞ্জ ফাঁড়ি এলাকায় একটি নির্বাচনী জনসভায় উপস্থিত হয়ে মমতা বলেন, ‘আমার কাছে একদিন খুব পরিচিত এসে বলল মনটা খুব খারাপ। আমি বললাম কি হয়েছে? সে বলল আর বলবেন না, আমার মাইয়াটা বাংলাদেশের একটা মুসলিম ছেলের সঙ্গে প্রেম করছে। আমার পরিবার পরিজনেরা তো খুব গালি দিতেছে। আমি কি করি বলুন তো, আমি ধর্ম সংকটে পইড়া গেছি। 

আমি তাকে বললাম, ওরা দুইজনে কোথায় দেখা হয়েছিল? সে বলল লন্ডনে পড়তে গিয়েছিল, দুইজনের দেখা হয়েছিল এবং তাদের মধ্যে প্রেম হয়। আমি তাকে বলেছিলাম ছেড়ে দিন না, ওরা যা ভাল বুঝবে তাই করবে। আপনার এ ব্যাপারে মাথা খারাপ করার কি দরকার? আর যদি মনে করেন যে আমন্ত্রণপত্রে এটা লিখতে লজ্জা পাচ্ছেন, তবে আমন্ত্রণপত্র আমার নামে করে দেবেন।’ 

এ সময় সভায় জনগণের উদ্দেশ্যে মমতা বলেন, আপনারা যদি ওই ভদ্রলোকের নাম জিজ্ঞাসা করেন, আমি বলবো আমাদের মন্টুদা।  জাত-পাত, ধর্ম নিয়ে বিজেপিকে খোঁচা দিতে গিয়ে নিজের এই পরিচিত ব্যক্তির উদাহরণ তুলে ধরেন মমতা। 

মমতা আরো বলেন, দেখুন আমি খুব লিবারেল (স্বাধীন)। একটা অল্পবয়সী ছেলে কো-এডুকেশন স্কুলে পড়ে, কো-এডুকেশন কলেজে পড়ে। এক সঙ্গে বিভিন্ন জায়গায় কাজ করে। একটা ছেলে-মেয়ে যদি গল্প করে, এক সঙ্গে বেড়াতে যায়-সেটাতে আমি খারাপ দেখি না। মনটা ভাল থাকলে সবটাই ভাল থাকে। বরং আমি নব প্রজন্মের এই যে অ্যাটিটিউড বা স্বাধীনভাবে মেলামেশা-এটাকে আমি পছন্দ করি। 

তিনি আরো বলেন, আমাকে আপনারা অনেকে বলতে পারেন আপনি কি এতটা নমনীয়? আমি বলবো হ্যাঁ, আমি এতটাই নমনীয়। আপনারা হয়তো জানেন না যে আমি একসময় বাড়ির বউদের বলতাম যে, তোমরা যদি মনে করো কারো সঙ্গে প্রেম করবে, করতে পারো। আমার তোমাদের অনুমতি দেয়া থাকলো। কারণ আমাদের যতগুলো বিয়ে হয়েছে-তার একটাও দেখে করিনি। তার কারণ হচ্ছে আমার মা কখনও বাধা দেয়নি। যে যেটা পছন্দ করেছে, ঠিক করেছে-সেটা তার মতো করতে দেয়া উচিত। 

দৈনিক চাঁদপুর
দৈনিক চাঁদপুর
আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর